/ / কিভাবে শুরু করবেন কনটেন্ট রাইটিং? আপনার জন্য সেরা গাইডলাইন
Tips and Tricks

কিভাবে শুরু করবেন কনটেন্ট রাইটিং? আপনার জন্য সেরা গাইডলাইন

কনটেন্ট রাইটিং হল এমন এক ধরণের রাইট আপ যা কোন ওয়েবসাইট বা পেজ বা কোন পণ্য বা বিষয়ের বিস্তারিত বিবরণ প্রকাশ করে। অনেক একে আর্টিকেল রাইটিং ও বলে থাকে । যেমন আপনি যদি ইন্টারনেটে কোন প্রডাক্ট বা কোন বিষয় নিয়ে সার্চ করেন তাহলে যে বিবরণ গুলো পান সেগুলোই হল কনটেন্ট । সহজ কথায় কনটেন্ট রাইটিং হল কোন বিষয়ের উপর ৩০০-১০০০ বা ২০০০ বা ততোধিক শব্দের লেখা তৈরি করা যা কোথাও থেকে কপি না করে পুরোটাই নিজের ভাষায় লেখা।

প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ শিখতে চান? কোনটা দিয়ে শুরু করবেন?

ইন্টারনেটের ব্যবহার বৃদ্ধির সাথে সাথে বেড়ে কনটেন্ট রাইটিং এর চাহিদা । কারন যেকোন কিছুর ডিজিটাল উপস্থিতি বা ইন্টারনেটে উপস্থিতি নিশ্চিত করতে আগে দরকার কনটেন্ট । সেই ১৯৯৬ সালে বিল গেটস বলেছিলেন “কনটেন্ট ইজ কিং’’। ব্যাপারটা তেমনি হয়ত থাকবে কারন অন্য অনেক কাজ রোবট বা আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স দিয়ে প্রতিস্থাপন করা গেলেও লেখালেখির কাজের ক্ষেত্রে তা সম্ভব হয়নি এখনো ।

লেখালখির কাজ বা কনটেন্ট রাইটিং কত ধরণের হতে পারে?
বিভিন্ন ধরণের লেখালখির বা কনটেন্ট রাইটিং এর কাজ ছড়িয়ে আছে মার্কেটপ্লেসগুলোতে। সব থেকে বেশি চাহিদাসম্পন্ন কনটেন্ট রাইটিং এর কাজগুলো জানতে নিচের দেয়া লিংকটি পড়ুন।

ক্যারিয়ার হিসেবে বেছে নিন পারফেক্ট কনটেন্ট রাইটিং

কনটেন্ট রাইটিং এ উপার্জন কেমন?
অবশ্যই ভাল মানের কন্টেন্টের প্রচুর চাহিদা রয়েছে। লেখালেখি করে ২০-৩০ হাজার টাকা আয় করা খুব কঠিন কিছু না । বাংলাদেশের অনেকেই ৫০ হাজার থেকে ১ লাখ টাকা আয় করছে । অনেকেই কোথায় কিভাবে কি করতে হবে সেটা ভালভাবেই জানে এবং সেভাবে আয়ও করছে ।

কোথায় কনটেন্ট রাইটিং এর কাজ পাওয়া যায়?
অনলাইন এবং অফলাইন দুভাবেই কাজ পাওয়া যায় । ইন্টারনেটে সার্চ দিলেই বেশ কয়েকটি সাইটের নাম পাবেন যেখানে লিখে আপনি আয় করতে পারবেন । তাছাড়া লেখালেখির বিভিন্ন কমিউনিটিতে অ্যাড হয়েও অনেক কাজ পাওয়া যায় ।

Similar Posts